ঢাকা, সোমবার   ২২ এপ্রিল ২০২৪ ||  বৈশাখ ৯ ১৪৩১

আর্জেন্টিনার ম্যাচ দেখতে হুমড়ি খেয়ে পড়ছেন মানুষ

স্পোর্টস ডেস্ক

প্রকাশিত: ১০:২৬, ১৮ মার্চ ২০২৩  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

কাতার বিশ্বকাপে রূপকথার নতুন গল্প লিখেছে আর্জেন্টিনা। তিন যুগ অপেক্ষার পর দেশকে বিশ্বজয়ের আনন্দে ভাসিয়েছেন লিওনেল মেসিরা। বিশ্বকাপের পর প্রথমবারের মতো মাঠে নামছে আকাশী-সাদারা। আগামী ২৩ মার্চ ঘরের মাটিতে পানামার মুখোমুখি হবে তারা। এ ম্যাচটি মাঠে বসে দেখতে হুমড়ি খেয়ে পড়ছেন মানুষ। 

এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আর্জেন্টিনা-পানামার মধ্যকার প্রীতি ম্যাচটির টিকিটের সর্বনিম্ন দাম ধরা হয়েছে আর্জেন্টাইন মুদ্রায় ১২ হাজার পেসো (প্রায় সাড়ে ৬ হাজার টাকা), সর্বোচ্চ ৪৯ হাজার পেসো (বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ২৬ হাজার টাকা)। দেশটিতে মুদ্রাস্ফীতির ঊর্ধ্বগতির মধ্যেও এ দামে টিকিটের চাহিদা ছিল তুঙ্গে।

জানা গেছে, বিশ্বজয়ীদের খেলা মাঠে বসে দেখতে অনলাইনে টিকিট কিনতে চেয়েছেন ১৫ লাখেরও বেশি মানুষ। তবে যে মাঠে খেলা হবে, বুয়েনেস এইরেসের সেই মনুমেন্টাল স্টেডিয়ামের দর্শক ধারণক্ষমতা আছে মাত্র ৮৩ হাজার।

আরেকটা অবাক করা তথ্য হচ্ছে, ম্যাচটি কাভার করতে অ্যাক্রেডিটেশন কার্ড চেয়েছেন ১ লাখ ৩১ হাজার সাংবাদিক। এ প্রসঙ্গে আর্জেন্টিনা ফুটবল এসোসিয়েশন প্রেসিডেন্ট ক্লাদিও তাপিয়া বলেন,ম্যাচটি কাভার করতে গণমাধ্যমের আগ্রহও স্মরণকালের সর্বোচ্চ। এক টুইটবার্তায় তিনি বলেন, ‘পানামার বিপক্ষে ম্যাচের জন্য ১ লাখ ৩১ হাজার ৫৩৭ জন সাংবাদিক অ্যাক্রেডিটেশনের অনুরোধ করেছেন, যা সাংবাদিক-চাহিদার দিক থেকে ইতিহাসের সর্বোচ্চ। সবার প্রত্যাশা পূরণ করতে পারলে আমরা খুশি হতাম। তবে এ জন্য আমাদের দুটি স্টেডিয়াম লাগবে।’

তবে আগ্রহের তুঙ্গে থাকা ম্যাচটি প্রতিযোগিতামূলক কোনো ম্যাচ। কেবল আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচ। তবুও বিশ্বকাপজয়ীদের একনজর দেখতে ভক্তদের যেন তর সইছে না। 

পানামার পর ২৮ মার্চ কুরাসাওয়ের বিপক্ষে আরেকটি ম্যাচ খেলবে আর্জেন্টিনা। ওই ম্যাচটির ভেন্যু সান্তিয়াগো দেল এসতেরোর ইউনিকো মাদ্রে দি সিউদাদেস স্টেডিয়ামের ধারণক্ষমতা আছে কেবল ৩০ হাজার। 

সর্বশেষ
জনপ্রিয়